10252020রবি
শিরোনাম:
শুক্রবার, 16 অক্টোবার 2020 18:39

স্টেডিয়াম সংস্কারের টাকায় মেসিকে কিনতে চেয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদ!

ক্রীড়া ডেস্ক এই তো কিছুদিন আগেই বার্সেলোনা ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছিলেন লিওনেল মেসি। শেষ পর্যন্ত তাকে চুক্তির প্যাঁচে ফেলে আরও এক মৌসুমের জন্য রেখে দিয়েছেন বার্সা সভাপতি জোসেফ মারিয়া বার্তামেউ। স্প্যানিশ লিগে বার্সার সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ। তাদের লড়াই বিখ্যাত 'এল ক্ল্যাসিকো' নামে পরিচিত। সেই রিয়াল মাদ্রিদই কয়েক বছর আগে মেসিকে কিনতে উঠেপড়ে লেগেছিল। এজন্য তারা প্রস্তাব করেছিল প্রায় আড়াই হাজার কোটি টাকা! স্কাই স্পোর্টসের ইতালিয়ান সাংবাদিক জিয়ানলুকা ডি মার্জিও সম্প্রতি এমন তথ্য প্রকাশ করে হইচই ফেলে দিয়েছেন। ২০১৩ সালে বার্সায় মেসির ২৫ কোটি ইউরো বাইআউট ক্লজ পরিশোধ করে মেসিকে কেনার প্রস্তাব দিয়েছিল রিয়াল। বাংলাদেশি মুদ্রায় অঙ্কটা প্রায় ২ হাজার ৪৮২ কোটি টাকা। পরের বছর হোসে মরিনহোর চেলসিও মেসিকে পেতে লড়াইয়ে নেমেছিল। তারা মেসির জন্য প্রতি মৌসুমে মেসির ৫ কোটি পাউন্ড নেট পারিশ্রমিক দিতে রাজি ছিল। কিন্তু প্রিয় ক্লাব ছেড়ে কোথাও যেতে রাজি হননি আর্জেন্টাইন তারকা। বার্সার সঙ্গে মেসির বর্তমান চুক্তি ২০২১ সালের জুন পর্যন্ত। তখন তিনি ক্লাবটি ছাড়বেন না চুক্তির মেয়াদ বাড়াবেন তা এখনো নিশ্চিত না। ডি মার্জিও তার বইতে লিখেছেন, '২০১৩ সালে প্রস্তাবটি দিয়েছিলেন রিয়াল মাদ্রিদ সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। মেসির জন্য তিনি ২৫ কোটি ইউরো রিলিজ ক্লজ দিতে চেয়েছিলেন। এই টাকাটা আসলে সান্তিয়াগো বার্নাব্যুর পুনঃসংস্কারের জন্য জমানো ছিল। কিন্তু মেসি নাকি প্রস্তাবটা শুনতে রাজিই ছিলেন না। সোজাসাপ্টা বলেছিলেন, "রিয়াল মাদ্রিদে যাচ্ছি না। তোমরা সময় অপচয় করছ।"
পড়া হয়েছে 9 বার। সর্বশেষ সম্পাদন করা হয়েছে: শুক্রবার, 16 অক্টোবার 2020 18:54