বৃহস্পতিবার, ২রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

বিশ্বকাপের পর দ্রাবিড়, রোহিতের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত, বাংলাদেশ কী ভাবছে

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে হারের পর ভারতের কোচ এবং অধিনায়ক বদল নিয়ে বার বার উপদেশ আসছে। রোহিত শর্মার পরিবর্তে হার্দিক পাণ্ড্যকে অধিনায়ক করার কথা বলা হচ্ছে। অনেকে মনে করেন রাহুল দ্রাবিড়ের জায়গায় টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে কোচ করা উচিত আশিস নেহরাকে। সেমিফাইনাল থেকে হেরে বিদায় নেওয়া ভারতীয় দলকে নিয়ে এমন উপদেশের মাঝে বাংলাদেশ জানাল যে তারা বোলিং কোচ হিসাবে অ্যালান ডোনাল্ডকেই রেখে দিচ্ছে। খবর আনন্দবাজারের।

অস্ট্রেলিয়াতে এ বার বাংলাদেশ ভারত, পাকিস্তান, দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে হারলেও নেদারল্যান্ডস এবং জ়িম্বাবোয়েকে হারিয়েছিল। তাতে যদিও সেমিফাইনালের রাস্তা খোলেনি। এমন পারফরম্যান্সের পরেও রেখে দেওয়া হচ্ছে বাংলাদেশের কোচ, অধিনায়কদের। বাংলাদেশের ক্রিকেট বোর্ডের এক কর্তা নিজামউদ্দিন চৌধুরী বলেন, “ভারতের বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে যে সিরিজ় হবে তাতে অ্যালান ডোনাল্ড থাকবেন। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত ওর সঙ্গে বোলিং কোচ হিসাবে চুক্তি হয়েছিল। কিন্তু ও ভারতের সিরিজ়ের সময় থাকবে।”

বাংলাদেশ পেসার মুস্তাফিজুর রহমানের বোলিং অ্যাকসন ঠিক করছেন ডোনাল্ড। নিজামউদ্দিন বলেন, “মুস্তাফিজুরকে খুব ভাল শেখাচ্ছে ডোনাল্ড। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে ত্রিদেশীয় সিরিজ়ে ভাল বল করেছে মুস্তাফিজুর।”

ডোনাল্ড থাকলেও বাংলাদেশ দলের টি-টোয়েন্টি কোচ শ্রীধর শ্রীরাম থাকবেন কি না তা এখনও জানায়নি সে দেশের বোর্ড। সূত্রের খবর, শ্রীধর শ্রীরামের কাজে খুশি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। তাই তাঁকেও রেখে দেওয়া হতে পারে।

ভারতীয় দকে রোহিতের পরিবর্তে হার্দিককে অধিনায়ক বেছে নিয়েছিলেন গাওস্কর। প্রাক্তন ব্যাটার বলেছেন, ‘‘প্রথম বার নেতৃত্বের দায়িত্ব পেয়েই দলকে আইপিএল চ্যাম্পিয়ন করেছে হার্দিক পাণ্ড্য। ওকে পরবর্তী অধিনায়ক হিসাবে বেছে নেওয়া যেতেই পারে। আমার মনে হয় ভবিষ্যতে হার্দিককেই অধিনায়ক করা উচিত। জানি না, হয়তো কয়েক জন অবসর নেবে। ক্রিকেটাররা হয়তো চিন্তাভাবনাও শুরু করে দেবে।’’

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষ

ফেসবুকে যুক্ত থাকুন

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষঃ