সোমবার, ৩০শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

‘জানতাম ঈশ্বরই চান ট্রফিটা আমার হাতে উঠুক’ : লিয়ো মেসি

হাসিমুখেই মাঠ ছাড়লেন মেসি। সেই সঙ্গে জানিয়ে দিলেন, বিশ্বকাপ জিতবেন এটা জানতেন। ঈশ্বরও চাইছিলেন যাতে তিনি বিশ্বকাপ জিতুন।

৩৫ বছরে এসে অবশেষে বিশ্বকাপ জয়। অধরা স্বপ্ন পূরণ। গোটা প্রতিযোগিতা জুড়ে অসাধারণ খেলে মাতিয়ে দেওয়া। ফুটবলজীবনের শেষ পর্যায়ে এসে থেকে বেশি আর কী চাইতে পারতেন লিয়োনেল মেসি। ফ্রান্সের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপের ফাইনাল হল ফাইনালের মতোই। অতিরিক্ত সময় ধরে ৪০ মিনিট ম্যাচের ভাগ্য দুলল এদিক-ওদিক। শেষ পর্যন্ত টাইব্রেকারে জিতে হাসিমুখেই মাঠ ছাড়লেন মেসি। সেই সঙ্গে জানিয়ে দিলেন, বিশ্বকাপ জিতবেন এটা জানতেন। ঈশ্বরও চাইছিলেন যাতে তিনি বিশ্বকাপ জিতুন।

আর্জেন্টিনার এক সংবাদমাধ্যমে মেসি বলেছেন, “অবিশ্বাস্য লাগছে। যা হয়েছে সেটা বিশ্বাসই করতে পারছি না। বিশ্বকাপ জেতার থেকে আনন্দের মুহূর্ত আর কিছুতে নেই। আমার হাতের ট্রফিটা দেখুন। কী সুন্দর লাগছে। বিশ্বকাপ জেতার জন্যে মরিয়া হয়েছিলাম। ঈশ্বর হয়তো আমার হাতেই বিশ্বকাপটা দেখতে চাইছিলেন। মনেও হচ্ছিল যে আমাদের হাতেই কাপটা উঠবে। আগে অনেক কষ্ট সইতে হয়েছে আমাদের। সব কষ্টের শেষ হল আজ।”

বিশ্বকাপ জেতাই তাঁর যে স্বপ্ন ছিল, এটা নির্দ্বিধায় বলে দিয়েছেন মেসি। তাঁর কথায়, “যে কোনও ফুটবলারের কাছে দেশের হয়ে বিশ্বকাপ জেতাই একমাত্র স্বপ্ন থাকে। যা কিছু আজ পর্যন্ত অর্জন করেছি, তার জন্যে আমি ভাগ্যবান। একমাত্র বিশ্বকাপটাই আমার ঘরে ছিল না। সেটাও এসে গেল।” গোটা দেশের মানুষকে এই ট্রফি উৎসর্গ করেছেন মেসি।

বিশ্বকাপে যে এটাই তাঁর শেষ ম্যাচ, সেটা জানিয়েছেন আর্জেন্টিনার অধিনায়ক। তবে জাতীয় দলের হয়ে আরও কিছু দিন খেলে যেতে চান। বলেছেন, “ট্রফি নিয়েই বিশ্বকাপ অভিযান শেষ করতে চেয়েছিলাম। সেটা পেরেছি। এর থেকে বেশি আর কিছু চাইতে পারি না। কোপা আমেরিকার পর বিশ্বকাপ। ভাবতেই পারছি না। এর পর কী হবে? এখনই বলতে পারব না। ফুটবল খেলতে ভালবাসি। জাতীয় দলের খেলাও আমাদের কাছে গর্বের ব্যাপার। আশা করি বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর আরও কয়েকটা ম্যাচ খেলে তার পর অবসর নেব।”

মেসি জানিয়েছেন, ট্রফি নিয়ে কাতার থেকে সোজা আর্জেন্টিনায় যেতে চান। তার পরে বাকি কাজ। বলেছেন, “আর্জেন্টিনায় ফেরার জন্য তর সইছে না। ওরা কতটা উদগ্রীব হয়ে রয়েছে ট্রফিটা দেখার জন্য, সেটা এক বার নিজের চোখে দেখতে চাই।”

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষ

ফেসবুকে যুক্ত থাকুন

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষঃ