সোমবার, ৩০শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

আওয়ামী লীগ সরকারের গণভিত্তি নেই: মির্জা ফখরুল

ফাইল ফটো।

আওয়ামী লীগ সরকারের গণভিত্তি নেই জানিয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বর্তমান ভোটারবিহীন সরকার ক্ষমতার মোহে অন্ধ, বেপরোয়া ও মানবিকবোধশুণ্য হয়ে পড়েছে। তবে আওয়ামী ফ্যাসিস্ট সরকারকে উৎখাতে জনগণ এখন রাস্তায় নামতে শুরু করেছে। আওয়ামী সরকারের পতন না হওয়া পর্যন্ত জনগণ রাজপথেই অবস্থান করবে।

রোববার এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন। মির্জা ফখররুল বলেন, স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় সভাপতি এস এম জিলানীর গ্রামের বাড়িতে (গোপালগঞ্জে) আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা এস এম জিলানীকে বাড়ীতে না পেয়ে তার বয়োবৃদ্ধ পিতা এবং নারী সদস্যদের সঙ্গে অশালীন আচরণসহ নানাভাবে হুমকি-ধামকি দিচ্ছে। আইন শৃঙ্খলা বাহিনী কর্তৃক এ ধরণের ন্যাক্কারজনক ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিএনপি মহাসচিব এই বিবৃতি দেন।

তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও সরকারদলীয় সন্ত্রাসীদের দিয়ে দেশব্যাপী বিএনপি নেতাকর্মীদের ওপর নানা কায়দায় জুলুম-নির্যাতনের নির্দয় ও অমানবিক খেলা যেন থামছেই না। দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাজনৈতিক দল-বিএনপিসহ বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের ওপর নির্যাতন-নিপীড়ণ চালিয়ে এবং দেশব্যাপী ত্রাস সৃষ্টির মাধ্যমে জোর করে রাষ্ট্রক্ষমতা নিয়ন্ত্রণে রাখাটাই এখন আওয়ামী সরকারের মূল লক্ষ্যে পরিণত হয়েছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, বর্তমান আওয়ামী সরকারের মোটেই কোনো গণভিত্তি নেই, আর এজন্য সরকার বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের ওপর জুলুম-নির্যাতন অব্যাহত রেখেছে। এরই ধারাবাহিকতায় এস এম জিলানীর গ্রামের বাড়ীতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা অভিযান চালাচ্ছে, তাকে বাসায় না পেয়ে তার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে অশালীন আচরণ করছে। বিএনপির জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়ে হিতাহিত জ্ঞানশুণ্য হয়ে বিএনপিকে দুর্বল করার জন্য নেতাকর্মীদেরকে নানাবিধ উপায়ে হয়রানি করা হচ্ছে।

বিএনপি মহাসচিব বিবৃতিতে অবিলম্বে এসএম জিলানীর গ্রামের বাড়ীতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের অমানবিক আচরণ বন্ধের আহবান জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষ

ফেসবুকে যুক্ত থাকুন

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষঃ