10152019মঙ্গল
স্পটলাইট

স্পটলাইট (861)

নিউজ ফ্ল্যাশ ডেস্ক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে আগামীকাল সোমবার গণভবনে দলের নেতাকর্মী, বিচারপতি, বিদেশি কূটনীতিকসহ সর্বস্তরের জনগণের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহ্সানুল করিম রোববার জানান, আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা প্রথমে সকাল সাড়ে ৯টা থেকে ১১টা পর্যন্ত গণভবনে দলের নেতা-কর্মীসহ সর্বস্তরের জনগণ ও পেশাজীবীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। তিনি আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী বেলা ১১টা থেকে একই জায়গায় বিচারপতি ও বিদেশি কূটনীতিকদের সঙ্গে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। বাসস
নিউজ ফ্ল্যাশ ডেস্ক ব্রিটিশ রাজপরিবারের কেউ রাজা বা রানি হতে চায় না। রাজপরিবারের সদস্যরা তাদের দায়িত্ব পালন করছেন শুধু জনগণের বৃহত্তর কল্যাণের কথা ভেবেই। যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাগাজিন নিউজউইককে দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে প্রিন্স হ্যারি এ কথা বলেছেন। একই সঙ্গে তিনি বলেছেন, প্রয়োজনের সময় আমরা আমাদের দায়িত্ব-কর্তব্য পালন করব। প্রিন্স হ্যারিকে প্রশ্ন করা হয়েছিল রাজপরিবারের কেউ কি আছে যে রাজা বা রানি হতে চায়? জবাবে তিনি বলেন, আমার মনে হয় না। ব্রিটিশ রাজতন্ত্রের আধুনিকীকরণে তিনি কাজ করছেন উল্লেখ করে বলেন, বিষয়টা অনেক জটিল। কৌশলগতভাবে ভারসাম্য বজায় রাখাটা আসলেই কষ্টকর। রাজপরিবারের সদস্যরা সাধারণ মানুষ ও বিশ্বাবাসীর সামনে নিজেদের হালকা দেখাতে চায় না। তবে প্রিন্সেস ডায়ানা যে তার দুই ছেলে হ্যারি ও উইলিয়ামকে সাধারণ মানুষের জীবন যাপনে উদ্বুদ্ধ করেছিলেন সেটার প্রশংসা করেন প্রিন্স হ্যারি। তিনি বলেন, দুই ভাই সাধারণ জীবন যাপন করতেন যা জানলে লোকে অবাক হবে। এখনো আমি তেমনটাই করার চেষ্টা করি। তিনি ম্যাগাজিনটিকে বলেন, আমি নিজেই নিজের কেনাকাটা করি। যদিও মাঝে মধ্যে একটু চিন্তাও হয় এই ভেবে যে, কেউ তার মোবাইলে আমার ছবি তুলে ফেলল কি না। তবে আমি তুলনামূলক সাধারণ জীবন-যাপন করছি। আমার সন্তান হলে তাদেরও তেমনটা করতে উদ্বুদ্ধ করব। এমনকি আমি যদি রাজাও হই, নিজের কেনাকাটা নিজেই করব। সাক্ষাত্কারে মা প্রিন্সেস ডায়ানার মৃত্যুর পর তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠানের বিষয়েও কথা বলেছেন প্রিন্স হ্যারি। তার মতে, মা প্রিন্সেস ডায়ানার মৃত্যুর পর শেষযাত্রার অনুষ্ঠানে কফিনের পেছনে সন্তানদের হেঁটে যাওয়ার বিষয়টি একদমই সঠিক ছিল না। প্রিন্স হ্যারি বলেন, ১২ বছরের শিশুকে এমনটা করতে বলা মোটেও ঠিক কিছু নয়। ১৯৯৭ সালের ৩১ আগস্ট প্রিন্সেস ডায়ানা এক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান। তার মৃত্যুর কয়েকদিন পর তাকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে যোগ দিয়েছিলেন রাজপরিবারের সকল সদস্য। প্রিন্স হ্যারি তার বাবা, দাদা, ১৫ বছর বয়সী ভাই প্রিন্স উইলিয়াম ও তার চাচাদের সঙ্গে লন্ডনের রাস্তা ধরে কফিনের পেছনে পেছনে হেঁটেছিলেন। সাক্ষাত্কারে প্রিন্স হ্যারি বলেছেন, মায়ের মৃত্যুর শোক কাটাতে তাকে কাউন্সিলিংও নিতে হয়েছিল। আমার মা মাত্র মারা গেছেন আর তার কফিনের পিছনে পিছনে আমাকে দীর্ঘসময় ধরে হাঁটতে হলো! আমার আশপাশে হাজার হাজার মানুষ। আমার মনে হয় না কোনো শিশুকে কোনো ধরনের পরিস্থিতিতেই এমন কিছু করতে বলা উচিত। রাজপরিবার সংক্রান্ত বিবিসির সংবাদদাতা পিটার হান্টের মতে প্রিন্স হ্যারির এই সাক্ষাত্কারটি অনেকের মনেই সমবেদনা জাগাবে যে, একজন প্রিন্স তার মায়ের মৃত্যুর ঘটনাটি নিয়ে এখনো মানসিকভাবে বিপর্যস্ত। অন্যদিকে রাজপরিবারের একজন সদস্য বলছেন যে, রানির উত্তরাধিকারীদের বিশেষ সুযোগসুবিধা নিতে হয়, তারা না চাইলেও সেটি নিতে হয়—এ বিষয়টিও অনেকের মনে প্রশ্ন জাগাবে। এ ছাড়া প্রিন্স হ্যারি তার দীর্ঘ সাক্ষাত্কারে একবারও তার বাবার প্রসঙ্গ আনেনি—এটাও অনেকের কাছে ভাবনার বিষয় হবে।
বাউফল (সংবাদদাতা) পটুয়াখালী রাঙ্গামাটিতে পাহাড় ধসে নিহত বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ক্যাপ্টেন তানভীর ইসলাম শান্ত'র গ্রামের বাড়িতে চলছে আবারো শোকের মাতাম। নাতীর শোকে হার্ট অ্যাটাক করে মারা গেলেন দাদা আজিজ মোল্লা (৭৫)। আজ বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে রাজধানীর বনানী কবরস্থানে যখন তানভীরের দাফনের প্রস্তুতি চলছিল তা শুনেই বাউফল উপজেলার কালীশুরী ইউনিয়নের সিংহেরা কাঠী গ্রামের বাড়িতে বসে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়লেন দাদা আজিজ মোল্লা। তানভীরের ভাবী সোনিয়া জানান, তানভীর ঢাকা নটরডেম কলেজ থেকে পাশ করে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী কমিশনার পদে চাকরি নেন। গত ৭/৮ মাস আগে ক্যাপ্টেন হিসাবে পদোন্নতি পেয়ে যোগদান করেন। তিনি ২০১৬ সালের ১০ অক্টোবর জয়পুরহাট জেলার নাজিয়া সুলতানাকে বিয়ে করেন। বাবা-মা ও স্ত্রী নিয়ে ঢাকার মাটিকাটা এমইএস এলাকায় থাকেন তিনি।
নিউজ ফ্ল্যাশ প্রতিবেদক জাতীয় সংসদে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের জন্য বাজেটে প্রস্তাবিত ব্যাংক আমানতের ওপর আরোপিত আবগারি শুল্ক হার পরিবর্তনের ইঙ্গিত দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেন, আবগারি শুল্কের হার কিছুটা পরিবর্তন হতে পারে। বুধবার সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন। অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘এ শুল্ক আগেও ছিল। তবে এবার হারটা বাড়ানো হয়েছে। এরপর থেকেই আপনারা কথা বলা শুরু করেছেন। বাজেটে এ শুল্ক বহাল থাকবে কিন্তু হারটা কিছুটা কমানো হতে পারে।’ অর্থ প্রতিমন্ত্রী কিছুদিন আগে একটি সেমিনারে আবগারি শুল্ক কমানোর কথা বলেছেন, সে বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘হি ইজ নট রেসপনসিবল পারসন অ্যাবাউট দিজ ম্যাটার।’ অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী মো. আবদুল মান্নান জাতীয় সংসদে ও সংসদের বাইরে কয়েক দিন ধরে বলে আসছিলেন, আবগারি শুল্ক কমানোর বিষয়ে সরকারের উচ্চ মহলে চিন্তাভাবনা চলছে। বৈঠকে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন, খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলামসহ ক্রয় কমিটির সদস্য ও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের সচিবরা উপস্থিত ছিলেন। গত ১ জুন জাতীয় সংসদে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের যে বাজেট উপস্থাপন করেছেন অর্থমন্ত্রী তাতে লাখ টাকার ওপরে ব্যাংক হিসাবে আবগারি শুল্ক বাড়ানোর কথা বলা আছে। এক লাখ টাকার কম ব্যাংক হিসাব থেকে তিনি শুল্ক তুলে দেয়ার প্রস্তাব করলেও এক লাখ ঊর্ধ্ব থেকে ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত শুল্ক ৫০০ থেকে ৮০০ টাকা করার প্রস্তাব করেন। একইভাবে এর ঊর্ধ্বসীমার বিভিন্ন ব্যাংক হিসাবেও শুল্ক আগের চেয়ে বাড়ানোর কথা বলেন তিনি। বাজেট প্রস্তাবে থাকা যেসব বিষয় নিয়ে আলোচনা হচ্ছে তার মধ্যে প্রথমেই থাকছে আবগারি শুল্কের বিষয়টি। সাধারণ নাগরিকদের পাশাপাশি ব্যবসায়ী, ব্যাংকার ও অর্থনীতিবিদরা আবগারি শুল্ক বাড়ানোর এ সিদ্ধান্তকে যৌক্তিক মনে করেছেন না। তারা বলছেন, শুল্ক বাড়লে লেনদেনের অবৈধ মাধ্যম উৎসাহিত হবে। ক্ষমতাসীন ও বিরোধী দলীয় কয়েকজন সাংসদও জাতীয় সংসদে অর্থমন্ত্রীর প্রস্তাব প্রত্যাহারের আহ্বান জানান। তবে এই সমালোচনা ও দাবির মুখেও অর্থমন্ত্রী গত ৮ জুন সিলেটে সাংবাদিকদেরকে বলেছেন, তিনি এই প্রস্তাব সংশোধনের পক্ষে নন।
নিউজ ফ্ল্যাশ প্রতিবেদক এবার বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের অভ্যন্তরীণ রুটের একটি ফ্লাইট চাকা ফেটে জরুরি অবতরণ করেছে। রোববার দুপুর ২টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিমানটি জরুরি অবতরণ করে। এতে পাইলটের দক্ষতায় রক্ষা পেয়েছেন ক্রসহ ৭২ যাত্রী। এর আগে গত বছরের ২১ ডিসেম্বর রাষ্ট্রীয় পতাকাবাহী বিমানের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ উড়োজাহাজের চাকা ফেটে যাওয়ার ঘটনা ঘটে। ফ্লাইটটি ওমানের মাসকট থেকে ১৪৯ জন যাত্রী নিয়ে চট্টগ্রামে যাচ্ছিল। মাঝপথে চাকা ফেটে যাওয়ার খবরে বিমানটি ঢাকায় জরুরি অবতরণে বাধ্য হয়। রোববার অভ্যন্তরীণ রুটের বিজি-০৪৯ ফ্লাইটটি ঢাকা থেকে রাজশাহী যাচ্ছিল। শাহজালালে উড্ডয়নের পর এটির একটি চাকা ফেটে যায়। পরে কন্ট্রোল টাওয়ার থেকে খবর পেয়ে পাইলট রাজশাহীতে না নেমে ঢাকায় ফিরে এসে জরুরি অবতরণ করেন। বিমানবন্দরের সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, রোববার দুপুর ১টার দিকে ক্রসহ ৭২ যাত্রী নিয়ে ঢাকা থেকে রাজশাহীর উদ্দেশে রওনা দেয় বিমানের অভ্যন্তরীণ ওই ফ্লাইট। চাকা ফাটার খবরে উড্ডয়নের প্রায় ৫১ মিনিট পর বিমানটি ঢাকায় ফিরে আসে। এ সময় বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিলে উড়োজাহাজটি শাহজালালে জরুরি অবতরণ করে। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) শাকিল মেরাজ বলেন, রোববার দুপুরে ঢাকা থেকে ড্যাশ-৮ মডেলের উড়োজাহাজটি ৭২ জন যাত্রী নিয়ে রাজশাহীর উদ্দেশে উড্ডয়ন করে। পরে বিমানবন্দরের কন্ট্রোল টাওয়ার থেকে পাইলটকে জানানো হয়, ফ্লাইটটির একটি চাকা ফেটে গেছে। যাত্রী সুরক্ষার কথা বিবেচনা করে পাইলট রাজশাহীতে না নেমে শাহজালালে ফিরে এসে জরুরি অবতরণ করেন। তার দক্ষতায় ফ্লাইটের যাত্রীদের কোনো ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটেনি।
নিউজ ফ্ল্যাশ ডেস্ক রাশিয়ান প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়েই রুশ হ্যাকাররা গত মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে হ্যাকিংয়ে জড়িত থাকতে পারেন। তবে তাদের কেউই রাষ্ট্রের নির্দেশনায় এ ধরণের কাজে জড়িত হননি। সেইন্ট পিটার্সবার্গে দেয়া এক বক্তৃতায় এ ধরণের মন্তব্য করেন তিনি। এসময় পুতিন আরো বলেন, ‘যারা রাশিয়ার বিরুদ্ধে খারাপ ধারণা পোষণ করে এবং বিদ্বেষ ছড়ায়, তাদের বিপক্ষে রুশ নাগরিকরা সর্বদায় ‘ন্যায়সঙ্গত যুদ্ধে’ লিপ্ত হওয়ার জন্য প্রস্তুত থাকে।’ হ্যাকারদের তিনি ‘শিল্পী’ হিসেবে উল্লেখ করে বলেন, ‘শিল্পীরা যেমন ঘুম থেকে ওঠে সারাদিন আপন মনে ছবি আঁকার কাজে ব্যস্ত থাকেন। হ্যাকাররাও অনেকটা তেমনই। তারাও সকালবেলাতে জেগেই আগে নিজের দেশের সঙ্গে অপর দেশগুলোর সম্পর্ক নিয়ে চলমান ঘটনাগুলো প্রত্যক্ষ করে। তারপর তারা দেশাত্মবোধের চেতনায় খারাপ প্রতিপক্ষকে স্বেচ্ছায় আক্রমণ করে।’ তবে, গত মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রুশ প্রশাসনের হস্তক্ষেপের বিষয়টিকে আবারো প্রত্যাখ্যান করেছেন পুতিন। এ বিষয়ে পুতিনের বক্তব্য, ‘এই ধরণের কার্যক্রম কখনো রুশ প্রশাসন থেকে পরিচালিত হয়নি। আমি মনে করি- হ্যাকাররা কখনোই ভোটারদের মনোভাব প্রভাবিত করতে পারেনা।’ বিবিসি ও সিএনএন।
বৃহস্পতিবার, 01 জুন 2017 23:55

যেসব পণ্যের দাম বাড়বে

লিখেছেন
নিউজ ফ্ল্যাশ প্রতিবেদক প্রস্তাবিত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের বাজেটে বেশকিছু পণ্যের ওপর স্থানীয় পর্যায়ে ও আমদানিতে শুল্ক, সম্পূরক শুল্ক ও রেগুলেটরি ডিউটি বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। এর ফলে ভোক্তা পর্যায়ে কিছু পণ্যের দাম বাড়বে। বৃহস্পতিবার অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মহিত এ সংক্রান্ত বেশকিছু ঘোষণা দেন। আমদানি পর্যায়ে আমদানি ও সম্পূরক শুল্ক বৃদ্ধির প্রস্তাবের ফলে যেসব পণ্য বা সেবার দাম বাড়তে পারে : অটোরিকশা, ইলেকট্রিক ব্যাটারিচালিত মোটর গাড়ি, সিসি ভেদে মোটর গাড়ি, চার দরজা বিশিষ্ট ডবল কেবিন পিকআপ, দুই ও চার স্ট্রোক বিশিষ্ট অটোরিকশা/থ্রি হুইলার ইঞ্জিন, সিলিং ফ্যান ও এর যন্ত্রাংশ, আমদানিকৃত রঙিন টেলিভিশন, সিম কার্ড, আমদানিকৃত সোলার প্যানেল, গুড়া দুধ, মাখন, শুকনা আঙ্গুর, যেকোনো ধরনের তাজা ফল, গোল মরিচ, দারুচিনি, লবঙ্গ, এলাচ, জিরা, চকলেট, শিশুখাদ্য, পটেটো চিপস, সস, আইসক্রিম, লবণ, জ্বালানি তেল, পেইন্টস, বার্নিশ, প্রসাধনী, শেভিংয়ে ব্যবহারের সামগ্রী, শরীরের দুর্গন্ধ দূরীকরণে ব্যবহৃত সামগ্রী, টয়লেট সামগ্রী, রুম সুগন্ধি, সাবান, ডিটারজেন্ট, মশার কয়েল, এরোসল ও মশা মারার সামগ্রী, প্লাস্টিক পণ্য, প্লাস্টিকের দরজা, জানালা, ফ্রেম, মোটর গাড়ির টায়ার, বিভিন্ন ধরনের ব্যাগ, ওভেন, ফ্রেবিক্স, কার্পেট, বিদেশি জুতা, ইমিটেশন জুয়েলারি, স্টেইলনেস স্টিলের সিঙ্ক, ওয়াস বেসিনের যন্ত্রাংশ, ওয়াটার ট্যাপ, বাথরুমের ফিটিংস ইত্যাদি। স্থানীয় বা সরবরাহ পর্যায়ে সম্পূরক শুল্ক আরোপের ফলে যেসব পণ্যের দাম বাড়তে পারে : সব ধরনের বার্গার, স্যান্ডউইচ, চিকেন ফ্রাই, ফ্রেঞ্চ ফ্রাই, হট ডগ, পিৎজা, ফ্রুট ড্রিংক, পাস্তা, লাজারানো, মিনারেল ওয়াটার (৩ লিটার পর্যন্ত), কোমল পানীয়, এনার্জি ড্রিংক, সিগারেট, বিড়ি, জর্দা ও গুল, পেইন্টস, পাউডার, শ্যাম্পু, সুগন্ধযুক্ত বাথ সল্ট ও অন্যান্য সামগ্রী, সিরামিক দেয়াল টাইলস ও বাথটাব।
নিউজ ফ্ল্যাশ ডেস্ক বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও কনিষ্ঠ কন্যা শেখ রেহানার নামে কোনো অফিশিয়াল ফেসবুক পেজ নেই বলে জানিয়েছে আওয়ামী লীগ। সেই সঙ্গে দলটি জানিয়েছে, শেখ হাসিনার কন্যা সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুলের নামে এখনও অফিশিয়ালি কোন ফেসবুক পেজ চালু হয়নি। তাদের নামে পরিচালিত ভুয়া ফেসবুক পেজে মিথ্যা সংবাদ প্রচারের পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার আওয়ামী লীগের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এই ঘোষণা দেয়া হয়। এতে বলা হয়েছে, "গত কিছু দিন ধরেই আমরা অত্যন্ত উদ্বেগের সাথে লক্ষ্য করছি যে-বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা ও কনিষ্ঠ কন্যা শেখ রেহানা এবং বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক ও বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্রী সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুলের নামে কিছু 'ফেইক ফেসবুক পেইজ' বাংলাদেশ ও বাংলাদেশের বাইরে থেকে পরিচালিত হচ্ছে এবং সেই পেইজগুলো থেকে নানা রকম মিথ্যা সংবাদ প্রচার করা হচ্ছে।' প্রধানমন্ত্রী-রেহানা-পুতুলের কোনো ফেসবুক পেজ নেই আ'লীগের ফেসবুক পেজে দেয়া ঘোষণার স্ক্রিনশট এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের ফেসবুক পেজে আরও বলা হয়েছে, 'বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ এর একটি ফেরিফাইড ফেসবুক পেইজ Sajeeb Wazed ও শেখ রেহানা'র পুত্র বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের গবেষণা প্রতিষ্ঠান CRI এর ট্রাস্টি রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক এর একটি ফেসবুক আইডি Radwan Mujib Siddiq অফিশিয়ালি চালু আছে-যা তারা নিজেরাই তত্ত্বাবধান করে থাকেন।' আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা বিভাগের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, "বঙ্গবন্ধুর কন্যাদ্বয় শেখ হাসিনা, শেখ রেহানা ও শেখ হাসিনার কন্যা সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুলের নামে এখনও অফিশিয়ালি কোন ফেসবুক পেইজ চালু হয়নি, একই সাথে এরকম পেইজগুলোর অ্যাডমিনদেরকে আমরা অনুরোধ করবো পেইজগুলোকে 'আনঅফিশিয়াল' (Unofficial) হিসেবে ঘোষণা দিয়ে আমাদেরকে সহযোগিতা করবেন-অন্যথায় আমরা অতিসত্বর আইনগত ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবো।"
শনিবার, 27 মে 2017 08:07

একদিনের প্রধানমন্ত্রী!

লিখেছেন
নিউজ ফ্ল্যাশ ডেস্ক কানাডার প্রধানমন্ত্রীর নাম জানতে চাইলে দশ বছরের বাচ্চাও বলে দেবে, জাস্টিন ট্রুডো। নিজের নানা কাণ্ডকারখানা দিয়ে অল্প সময়ের মধ্যেই মানুষের মনে জায়গা করে নিয়েছেন জাস্টিন ট্রুডো। তবে একদিনের জন্য কানাডার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মজার একটি দিন কাটালো পাঁচ বছরের মেয়ে বেলা থমপসন। যদিও দাপ্তরিক কোন দায়িত্ব দেয়া হয়নি বেলাকে। মূলত বাচ্চাদের একটি প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হওয়ার সুবাদে বেলা নামের ফুটফুটে মেয়েটি সুযোগ পায় দেশটির প্রধানমন্ত্রীর সাথে গোটা একটা দিন কাটানোর। প্রধানমন্ত্রী যা করেছে বেলাও তা করার সুযোগ পেয়েছে। একসাথে খাওয়া-দাওয়া, লুকোচুরি খেলা সবই হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর এমন উদার ব্যবহার বরাবরই সবার মন জয় করে। জাস্টিন ট্রুডোর চিন্তা-ভাবনাও মানুষকে মুগ্ধ করে। ট্রুডোর স্পষ্ট মন্তব্য, প্রধানমন্ত্রী হিসেবে প্রত্যেকের বাড়ি এবং নিরাপত্তার নিশ্চিত করবো। আমি সবাইকে জড়িয়ে ধরবো। চারপাশের পৃথিবী, পশু-পাখির নিরাপত্তা নিশ্চিত করবো। কানাডার সব নাগরিকের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করবো। সবার প্রতিই দেখাবো মহানুভবতা।-এনডিটিভি
শুক্রবার, 26 মে 2017 15:26

সবই জানি, কিছুই বলবো না : মৃণাল হক

লিখেছেন
নিউজ ফ্ল্যাশ প্রতিবেদক কার নির্দেশে সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণে স্থাপিত ভাস্কর্যটি সরিয়ে নেওয়া হয়েছে তা সবাই জানেন বলে জানিয়েছেন এ ভাস্কর্যের শিল্পী মৃণাল হক। ধর্মীয় সংগঠনগুলোর দাবির মুখে ন্যায়বিচারের প্রতীক হিসেবে স্থাপিত ওই ভাস্কর্যটি সরানোর কাজ শুরু হয় বৃহস্পতিবার রাতে। ভাস্কর্য অপসারণের সময় মৃণাল হক সাংবাদিকদের বলেন, আমি সবই জানি কেন এই ভাস্কর্যটি সরানো হচ্ছে। কার নির্দেশে তা হচ্ছে। তবে কিছুই বলবো না। তিনি বলেন, চাপের মুখে পড়ে এই ভাস্কর্য অপসারণ করা হচ্ছে। সরানোর সময় ভাস্কর্যের যেন কোনো ক্ষতি না হয় এ জন্য তদারকি করতেই ঘটনাস্থলে উপস্থিত আছেন বলে তখন সাংবাদিকদের জানান তিনি। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে ভাস্কর্য সরানোর কাজ শুরু হয়। গত বছরের ডিসেম্বরে তার তত্ত্বাবধানেই এই ভাস্কর্য স্থাপন করা হয়েছিল। সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণে স্থাপিত ভাস্কর্যটি অপসারণের দাবি জানিয়ে আসছিল হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ। হেফাজতের এই দাবির নিন্দা জানিয়েছেন বিশিষ্ট নাগরিকরা ও একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি। এ বছরের ফেব্রুয়ারিতে হেফাজতের আমির শাহ আহমদ শফী এক বিবৃতিতে বলেন, সর্বোচ্চ বিচারালয়ের সামনে গ্রিক দেবীর মূর্তি স্থাপন বাংলাদেশের গণমানুষের ধর্মীয় বিশ্বাস, সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ও আদর্শিক চেতনার একেবারেই বিপরীত। অবিলম্বে এটি অপসারণের দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, লাখ লাখ মানুষ রাস্তায় নেমে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবে।

এ বিভাগের সর্বশেষ সংবাদ

ফেসবুক-এ আমরা