09162019সোম
শিরোনাম:
শনিবার, 22 মার্চ 2014 09:46

পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়কে লুটপাটের আখড়া মনে করবেন না: মন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
পরিবেশ ও বনমন্ত্রী আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বলেছেন, পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়কে কেউ লুটপাটের আখড়া মনে করবেন না। আত্মসমালোচনার মাধ্যমে এ মন্ত্রণালয়ের ভাবমূর্তি উদ্ধারে সবাইকে একযোগে কাজ করতে হবে। তিনি বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী দুর্নীতিকে বিন্দুমাত্র ছাড় দেবেন না।
শুক্রবার আন্তর্জাতিক বন দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বলেন, পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয় বিভিন্ন মন্ত্রণালয়কে অর্থ দেয়। কিন্তু এসব অর্থ দিয়ে গৃহীত প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন হলো কি না তা নজরদারির ব্যবস্থা নেই। কাজের দক্ষতা বাড়াতে হলে নজরদারি বাড়ানোর কোন বিকল্প নেই।

পরিবেশ ও বনমন্ত্রী বলেন, আমাদের দেশে জ্বালানি সঙ্কট রয়েছে। কোন কোন এলাকার মানুষ গ্যাস সরবরাহ পেলেও দেশের বিরাট এলাকা গ্যাস সংযোগের বাইরে। জীবন বাঁচানোর জন্য অনেকে গাছ কাটছেন। এতে অন্যায় কিছু নেই। কিন্তু কেটে নেয়া গাছের বিপরীতে আরও বেশি করে গাছ লাগাতে হবে। আশার কথা হচ্ছে বাংলাদেশের এমন কোন এলাকা নেই যেখানে গাছ লাগানো হচ্ছে না। এমনও দেখা গেছে, আগে যেসব জমিতে ধানের চাষ হতো সেসব এলাকায় এখন গাছ লাগানো হয়েছে। এ খাত থেকে অনেকে বাড়তি উপার্জনও করছেন। গাছ লাগানো নিয়ে ঘরে ঘরে গণজাগরণের সৃষ্টি হয়েছে।

 তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো অনেক সময় আমাদের সমালোচনা করে। শুধু পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়ের নয়, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে নানা সীমাবদ্ধতা আছে। এক্ষেত্রে প্রথম এবং প্রধান কাজ হবে ভাবমূর্তি ফিরিয়ে আনা। ‘গাছ চোর’-এ অপবাদ থেকে নিজেদের মুক্ত থাকতে হবে।
তিনি বলেন, আমরা অনেক কাজ করেছি, আবার অনেক কিছু করিনি। বাংলাদেশের সব গাছ যে বন বিভাগ রোপণ করেছে তা ঠিক নয়। রাস্তার পাশে বনায়নের পেছনে সড়ক ও জনপদ বিভাগ, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়, কৃষি বিভাগেরও অবদান আছে।
প্রধান বন সংরক্ষক মো. ইউনুস আলীর সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত  হয়।  সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপমন্ত্রী আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব বলেন, বিপুল জনসংখ্যার চাপে আমাদের দেশে বনভূমির পরিমাণ কমে যাচ্ছে। জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলা করতে হলে বনাঞ্চল রক্ষা এবং বৃক্ষরোপণের বিকল্প নেই।
মন্ত্রণালয়ের সচিব শফিকুর রহমান পাটোয়ারী বলেন, শুধু দিবস উদযাপনের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকলেই হবে না। আমাদের কাজ করে দেখাতে হবে। জীবন এবং জীবিকা বাঁচাতে বনাঞ্চল রক্ষার বিকল্প নেই।

পড়া হয়েছে 525 বার। সর্বশেষ সম্পাদন করা হয়েছে: শনিবার, 22 মার্চ 2014 10:16

ফেসবুক-এ আমরা