11212019বৃহঃ
শুক্রবার, 22 মে 2015 09:30

সরকার ব্যবসায়ীদের স্বার্থে সবকিছু করতে প্রস্তুত-প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক আসন্ন বাজেটে ব্যবসায়ীদের জন্য চমক থাকছে জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, সরকার দেশের স্বার্থে ব্যবসায়ীদের জন্য বিশেষ সুযোগ-সুবিধা দিয়ে থাকে। তারই অংশ হিসেবে আগামী বাজেটে ব্যবসায়ীদের বিশেষ প্রণোদনা দেয়া হবে। বাজেট অধিবেশনে এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রী জানাবেন। এ নিয়ে এখন কিছু বলব না। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ ব্যবসা করতে ক্ষমতায় আসেনি। আমরা ব্যবসায়ী নই। আমরা দেশ ও জনগণের স্বার্থে কাজ করি। ব্যবসায়ীদের জন্য কাজ করি। তাদের জন্য সবকিছু করতে প্রস্তুত। ব্যবসায়ীদের জন্য আমরা বাংলাদেশ-ভরত-নেপাল-ভুটান যৌথ ব্যবসা-বাণিজ্য বাড়ানোর ব্যবস্থা করেছি। বাংলাদেশ-মিয়ানমার-চীনেও যৌথ ব্যবসার ব্যবস্থা করেছি। বৃহস্পতিবার বিকালে রাজধানীর আগারগাঁওয়ের বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের পক্ষ থেকে দেয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত ভাষণ দেন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি কাজী আকরাম উদ্দিন আহমেদ। সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী প্রমুখ। মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন সহসভাপতি মনোয়ারা হাকিম আলী ও হেলাল উদ্দিন। অনুষ্ঠানের শুরুতে এফবিসিসিআইর পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়। পরে সভাপতির নেতৃত্বে সংবর্ধনা ক্রেস্ট তুলে দেন প্রধানমন্ত্রীর হাতে। অনুষ্ঠানে এফবিসিসিআইসহ বিভিন্ন ব্যবসায়ী সংগঠনের বিপুলসংখ্যক নেতা, শীর্ষ শিল্পপতি ও চেম্বার নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সীমান্ত চুক্তি ও সমুদ্র সীমা নির্ধারণের উদাহরণ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশের প্রতিটি খাতে কাজ শুরু করেছিলেন। কিন্তু তাকে সেগুলো শেষ হওয়ার আগেই হত্যা করা হয়। তার শুরু করা কাজগুলো সম্পাদনের মাধ্যমেই এ দেশ এগিয়ে যাবে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিদেশে রফতানির পাশাপাশি দেশেও বাজার সৃষ্টি করতে হবে। মানুষের ক্রয় ক্ষমতা যত বাড়বে, তত বাজার সম্প্রসারিত হবে। তিনি বলেন, দেশের জনগোষ্ঠীর চাহিদার চেয়ে বেশি খাদ্য উৎপাদন সম্ভব হচ্ছে। আমাদের ব্যবসা-বাণিজ্য যত বাড়বে, অর্থনৈতিক উন্নয়নও তত দ্রুতগতিতে হবে। নতুন করে ১ কোটি মানুষকে চাকরি দিয়েছে সরকার- উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আরও চাকরি দিতে চাই। গত ৬ বছরে ১ কোটি মানুষ চাকরি পেয়েছে। সেই সঙ্গে নারী উদ্যোক্তা তৈরি করছি আমরা। আরও সুযোগ দিতে চাই নারী-পুরুষ সবাইকেই। তিনি বলেন, গ্রাম পর্যায় পর্যন্ত এখন অনলাইনে ব্যবসা-বাণিজ্য হচ্ছে। ১৩ হাজার ৭শ’ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে। দেশে ৭০ ভাগ মানুষ এখন বিদ্যুৎ পাচ্ছে। আরও উৎপাদন বাড়াচ্ছি আমরা। ২০২১ সালে আমরা স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন করব, এর মধ্যে কোনো হতদরিদ্র মানুষ থাকবে না দেশে।
পড়া হয়েছে 540 বার। সর্বশেষ সম্পাদন করা হয়েছে: শুক্রবার, 22 মে 2015 09:46