04042020শনি
বৃহস্পতিবার, 12 মার্চ 2020 20:40

মানহানির মামলায় প্রথমে খালেদা জিয়ার স্থায়ী জামিন, পরে প্রত্যাহার

 বেগম খালেদা জিয়া।ছবি: সংগৃহীত বেগম খালেদা জিয়া।ছবি: সংগৃহীত বেগম খালেদা জিয়া।ছবি: সংগৃহীত
নিউজ ফ্ল্যাশ প্রতিবেদক মানহানির এক মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে সকালে স্থায়ী জামিন দিলেও দুপুরে পর ওই আদেশ প্রত্যাহার করে নিয়েছে হাইকোর্ট। রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের প্রেক্ষিতে জামিন প্রশ্নে জারিকৃত রুলের উপর পুনরায় শুনানির জন্য দিন ধার্য করে বিচারপতি মো. আবু জাফর সিদ্দিকী ও বিচারপতি এএসএম আব্দুল মোবিনের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ বৃহস্পতিবার এই আদেশ দেন। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সামিরা তারান্নুম রাবেয়া ও খালেদা জিয়ার পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট কামারুজ্জামান। ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সামিরা তারান্নুম রাবেয়া বলেন, আদালত প্রথমে খালেদা জিয়াকে স্থায়ী জামিন দিয়েছিলেন। তখন আমরা উপস্থিত ছিলাম না। পরে আমরা আদালতকে বলি, এই মামলায় খালেদা জিয়া ২০২১ সালের জানুয়ারি মাস পর্যন্ত জামিনে আছেন। রাষ্ট্রপক্ষের কাছে এই মামলার নথি নেই। আমরা রুল শুনানি করতে চাই। তখন আদালত আমাদের আবেদন মঞ্জুর করে স্থায়ী জামিনের আদেশ প্রত্যাহার করে পুনরায় রুল শুনানির জন্য দিন ধার্য করেন। অবকাশকালীন ছুটির শেষের এক সপ্তাহ পর ওই রুল শুনানি হবে। মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের সংখ্যা নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করার অভিযোগে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ২৪ ডিসেম্বর নড়াইল সদর আমলি আদালতে মানহানির মামলা করেন নড়াগাতী থানার চাপাইল গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান রায়হান ফারুকী ইমাম। ২০১৮ সালের ৫ আগস্ট এ মামলায় নড়াইলের আদালতে খালেদা জিয়ার জামিন না মঞ্জুর হয়। পরে হাইকোর্ট খালেদা জিয়াকে ছয় মাসের জামিন দেয়। একইসঙ্গে নিয়মিত জামিন কেন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করে।
পড়া হয়েছে 28 বার। সর্বশেষ সম্পাদন করা হয়েছে: বৃহস্পতিবার, 12 মার্চ 2020 21:06