01172019বৃহঃ
নিজস্ব প্রতিবেদক, নিউজফ্ল্যাশ ডটকমআইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী দেখভালের দায়িত্বে থাকা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাজের পরিধি বেড়ে গেছে জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, কাজে আরো গতি আনতে এ মন্ত্রণালয়কে ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনা রয়েছে।এ ব্যাপারে আলাপ-আলোচনা চলছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। নতুন সরকারে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একজন প্রতিমন্ত্রী দিলেও গুরুত্বপূর্ণ ও বৃহৎ এই মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব নিজের কাছেই রেখেছেন প্রধানমন্ত্রী।পুলিশ সপ্তাহ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরে মূল্যায়ন সভায় শেখ হাসিনা বলেন, ‘শুধু পুলিশ ডিভিশন নয়, পুরো স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়টাকে আমাদের ঢেলে সাজাতে হবে।’স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে পৃথক পুলিশ বিভাগ করার দাবি জানিয়ে আসছে পুলিশ বাহিনী। সকালে রাজারবাগে পুলিশ সপ্তাহ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সঙ্গে বৈঠকে পুলিশ…
নিজস্ব প্রতিবেদক, নিউজফ্ল্যাশ টোয়েন্টিফোর বিডি ডটকমরাজধানীর লালবাগ কেল্লায় প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ চলে যাওয়ার ঘটনায় ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির (ডিপিডিসি) চার নির্বাহী প্রকৌশলীসহ ১০ কর্মকর্তা-কর্মচারীকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।ডিপিডিসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নজরুল হাসান শুক্রবার রাতে এ তথ্য জানিয়েছেন।নিউজফ্ল্যাশ টোয়েন্টিফোর বিডি ডটকমকে তিনি বলেন, পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখতে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।সন্ধ্যায় লালবাগ কেল্লা প্রাঙ্গণে আলো ও সুরের সমন্বয়ে লালবাগ কেল্লার ইতিহাস-ঐতিহ্য নিয়ে নির্মিত ‘লাইট অ্যান্ড সাউন্ড শো’র উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে পুরো অনুষ্ঠানে তিনবার বিদ্যুৎচলে যায়।সন্ধ্যা ৬টার কিছু পরে প্রধানমন্ত্রী অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছান। তিনি আসার সঙ্গে সঙ্গেই বিদ্যুৎ চলে যায়। কিছুক্ষণের মধ্যেই আবার বাতি জ্বলে…
মঙ্গলবার, 04 ফেব্রুয়ারী 2014 09:03

চরম ভারসাম্যহীন প্রশাসন

সিদ্দিকুর রহমানজনপ্রশাসনে চরম ভারসাম্যহীনতা বিরাজ করছে। নিচের স্তরে বেশি কর্মকর্তা থাকার কথা থাকলেও বাস্তবে উপরের স্তরে অনুমোদিত পদের চেয়ে তিনগুণ। প্রশাসনে ঢালাওভাবে পদোন্নতি দেয়ায় জনপ্রশাসনের স্বাভাবিক কাঠামো ভেঙে পড়েছে। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, প্রশাসনের উপসচিব, যুগ্ম সচিব ও অতিরিক্ত সচিব পদের চেয়ে প্রায় তিনগুণ বেশি। এই তিন স্তরে ১ হাজার ৩৭০টি পদের বিপরীতে ২ হাজার ৬৬০ জন কর্মরত রয়েছেন। অথচ নিচের স্তরে সহকারী সচিব, সিনিয়র সহকারী সচিবের সংখ্যা পদের চেয়ে কম। বর্তমান অবস্থায় গত জানুয়ারিতে ৮৫ যুগ্ম সচিবকে পদোন্নতি দিয়ে অতিরিক্ত সচিব করা হয়েছে। উপসচিব পদে পদোন্নতি দেয়ার আরেকটি প্রক্রিয়া উপজেলা নির্বাচনের কারণে ঠেকে গেছে। কারণ এ পদে পদোন্নতি…
মঙ্গলবার, 28 জানুয়ারী 2014 20:18

৫ বছরই পরীক্ষামূলক কাজেই সময় পার

সিদ্দিকুর রহমানপ্রশাসনে স্বচ্ছতা ও জবাবদীহিতা নিশ্চিত করাসহ দক্ষ প্রশাসন গড়তে প্রয়োজনীয় সংস্কার করতে পারেনি সরকার। সংস্কারের নামে কিছু পরীক্ষামূলক পদক্ষেপেই কেটেছে আওয়ামী লীগের গত পাঁচটি বছর। ফলে প্রশাসনকে দলীয়করণ মুক্ত করার বিষয়টি ‘প্রতিশ্র“তি’ শব্দের মাঝে আটকে ছিলো। এ কারণে পদোন্নতি ও পদায়নে কোন স্বচ্ছতা আসেনি। হতাশায় ঝিমুচ্ছে প্রশাসন।সচিবালয়ের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সরকার ২০০৯ সাল থেকে এ পর্যন্ত প্রশাসনের বিভিন্ন স্তরে ২ হাজার ৬১৫ জন কর্মকর্তাকে পদোন্নতি দিয়েছে। এসব পদোন্নতিতে রাজনৈতিক বিবেচনা, জোরালো লবিং ও বিভিন্ন প্রভাবশালী মহলের চাপ ছিলো। এরফলে অধিকাংশ ক্ষেত্রে মেধা ও দক্ষতাকে প্রাধান্য দেয়া হয়নি বলে অভিযোগ তাদের।জনপ্রশান মন্ত্রণালয়ের একটি দায়িত্বশীল সূত্রে জানা গেছে, বর্তমানে ৮৩০টি উপসচিব পদের…
সিদ্দিকুর রহমানজাতীয় পার্টির মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীরা তাদের পদত্যাগের জের ধরে ১০ দিন ধরে অফিস না করায় সৃষ্ট প্রশাসনিক অচলাবস্থা নিরসনে মন্ত্রণালয়ের সার-সংক্ষেপ (সামারি) সরাসরি প্রধানমন্ত্রীর কাছে পাঠানো হচ্ছে। গত রোববার প্রশাসনিক উন্নয়ন সংক্রান্ত সচিব কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয় বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক কর্মকর্তা জানান, শেখ হাসিনার নির্বাচনকালীন মন্ত্রিসভায় জাতীয় পার্টির নেতাদের গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী করা হয়েছে। মন্ত্রণালয়গুলোর মধ্যে রয়েছে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ, বাণিজ্য, বেসামরিক বিমান ও পর্যটন, পানিসম্পদ, যুব ও ক্রীড়া, মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয়। মন্ত্রীরা অফিস না করায় মন্ত্রণালয়গুলোর কার্যক্রমে স্থবিরতা এসেছে। সরকারের রুটিনমাফিক কাজও করা যাচ্ছে না।সম্প্রতি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এইচএম এরশাদ নির্বাচন না…
নিজস্ব প্রতিবেদক, নিউজফ্ল্যাশ টোয়েন্টিফোর বিডি ডট কমনির্বাচনকে সামনে রেখে নির্বাচন কমিশনের সম্মতিতে প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ন পদে রদবদল করা শুরু হয়েছে। নির্বাচন কমিশনের আদেশের পরে ঢাকার বিভাগীয় কমিশনার এ এন শামসুদ্দিন আজাদ চৌধুরীকে বদলি করা হয়েছে। একইসঙ্গে খুলনায় নিয়োগ দেয়া হয়েছে নতুন একজন জেলা প্রশাসককে।মঙ্গলবার গতকাল জনপ্রশাসন মন্ত্রণাললয় একাধিক প্রজ্ঞাপন জারি করে। ঢাকার কমিশনার এ এন শামসুদ্দিন আজাদ চৌধুরীকে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব করা হয়েছে। আর ওই পদে থাকা মো. জিল্লার রহমানকে করা হয়েছে ঢাকা বিভাগের নতুন কমিশনার।আগামী নির্বাচনে ঢাকার ১৫টি আসনে রিটার্নিং কর্মকর্তার দায়িত্ব পালন করবেন বিভাগীয় কমিশনার। কিন্তু তফসিল ঘোষণার পর ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে পোস্টার সরানোর ব্যবস্থা নিতে গাফিলতির কারণে…
সিদ্দিকুর রহমানউপদেষ্টারা যেখানে মন্ত্রণালয়ের কোন ফাইলেই স্বাক্ষর করতে পারেন না সেখানে প্রধানমন্ত্রীর দুই উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম ও ড. মশিউর রহমান সারসংক্ষেপ তৈরি করে প্রধানমন্ত্রীর কাছে পাঠিয়েছেন। অনুমোদন করে প্রধানমন্ত্রী তা আবার পাঠিয়েছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে। পুরো বিষয়টিই তড়িঘরি করে করা হয়েছে। পদত্যাগের একদিন আগে উপদেষ্টারা এ কাজ করেছেন। একই তারিখে প্রধানমন্ত্রীও তা অনুমোদন করেছেন। সার সংক্ষেপটি পুলিশের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি সংক্রান্ত হওয়ায় সংশ্লিস্টরা একে পুলিশের জন্য ‘নির্বাচনী’ প্যাকেজ হিসেবে চিহ্নিত করছেন।সচিবালয় বিধিমালার ১১৩ ধারায় বলা হয়েছে, ‘সারসংক্ষেপ সচিব ও দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ও উপদেষ্টা কর্তৃক স্বাক্ষরিত হইবে যাহাতে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী/প্রধান উপদেষ্টা তাঁহার আদেশাবলী সারসংক্ষেপের ওপর লিপিবদ্ধ করিতে পারেন।’ রুলস অব বিজনেসের ৯…
সিদ্দিকুর রহমানজাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ‘লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড’ তৈরি করতে প্রশাসনের বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা (ওএসডি) মন্ত্রিপরিষদ সচিবের কাছে পদায়নের দাবি জানিয়েছেন। এর মধ্যে এক সচিবসহ অতিরিক্ত সচিব, যুগ্ম সচিব ও উপ-সচিব পদের কর্মকর্তারা রয়েছেন। তাদের মধ্যে বঞ্চিতরা পদোন্নতির দাবিও জানান। বুধবার সচিবালয়ে একদল ওএসডি কর্মকর্তা মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞার সঙ্গে তার দফতরে দেখা করেন। তারা পদায়ন ও পদোন্নতির দাবি করেন। এ প্রসঙ্গে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞা গতকাল বুধবার মানবকণ্ঠকে বলেন, পদায়ন ও পদোন্নতির দাবি নিয়ে প্রশাসনের কিছু কর্মকর্তা দেখা করেছেন। আমি শুধু তাদের কথাই শুনেছি। কারণ পদোন্নতির ক্ষেত্রে এসএসবি বোর্ডের আমি একজন সদস্য। একজনের পক্ষে কোনো প্রতিশ্রুতি…
নিজস্ব প্রতিবেদক সর্বদলীয় সরকারের মন্ত্রীরা আগামী নির্বাচন অবাধ ও নিরপেক্ষ করার জন্য দায়িত্ব পালন করবে। তারা বলেন, প্রশাসন এ ক্ষেত্রে নিরপেক্ষ থাকবে। তাদের পক্ষপাতিত্ব করার কোন সুযোগ নেই। মন্ত্রীদের কার্যক্রম রুটিন কাজের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে। প্রধান বিরোধীদল এ নির্বাচনে অংশ নেবে। গতকাল রোবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে নতুন মন্ত্রী প্রতিমন্ত্রীরা প্রথম অফিসে এসে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।শিল্প এবং গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, আগামী নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু করার জন্য আমরা দায়িত্ব পালন করবো। এক্ষত্রে সবার সহযোগিতা প্রয়োজন। প্রশাসন নিরপক্ষে থাকবে। তোফায়েল আহমদ বলেন, বিএনপির উপলব্ধি হয়েছে। আর সেই উপলব্ধি থেকেই বিএনপি নির্বাচনে অংশ নেবে। কেননা জ্বালাও-পোড়াও করে কিছু অর্জন…
নিউজফ্ল্যাশ ডেস্কশান্তিরক্ষীদের মতো জাতিসংঘ মিশনে কর্মরত বাংলাদেশি নারী পুলিশ সদস্যদের ভূমিকাও প্রশংসিত হয়েছে। দ্বন্দ্ব-সংঘাতে ক্ষত-বিক্ষত জনপদে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য কর্মরত জাতিসংঘ পুলিশের কমান্ডিং অফিসারদের দুই দিনব্যাপী এক কর্মশালায় এই প্রশংসা কুড়ান তারা। এতে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনের পুলিশ অ্যাডভাইজার স্টিফেন ফেলার বলেন, হাইতি পুনর্বাসন মিশনে কর্মরত বাংলাদেশি মহিলা পুলিশ অবিস্মরণীয় ভূমিকা প্রদর্শন করে চলেছে। তাদের দায়িত্ববোধ প্রশংসনীয়। একটি অনলাইন বার্তাসংস্থা এ খবর প্রকাশ করেছে। যুদ্ধবিধ্বস্ত অথবা সংঘাতপীড়িত অঞ্চলে নির্যাতিত নারীদের আস্থা আনার ক্ষেত্রে নারী পুলিশ সদস্যদের গুরুত্বের কথা তুলে ধরেন তিনি, যারা শান্তিরক্ষীদের সহযোগী হয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি বলেন, এখনো বিশ্বের অনেক দেশেই ধর্ষিত নারী তাদের অভিযোগ কোনো পুরুষের কাছে…
মঙ্গলবার, 01 অক্টোবার 2013 08:59

সচিবালয়ে বিশৃঙ্খলার আশঙ্কা

সিদ্দিকুর রহমানপ্রশাসন পরিচালনার কেন্দ্রবিন্দু বাংলাদেশ সচিবালয়ে বিএনপি ও জামায়াত অনুসারী কর্মচারীরা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির পাঁয়তারা করছে। কর্মচারীদের কিছু দাবি আদায়ের নামে যে কোনো মুহূর্তে এ ঘটনা ঘটতে পারে। সরকারের ওপর প্রশাসনও বিগড়ে যাচ্ছে দেশ-বিদেশে এমন ধারণা ছড়িয়ে দেয়ার প্রস্তুতি চলছে। সচিবালয় সংশ্লিষ্ট একাধিক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। সূত্র জানায়, সচিবালয়ের বিএনপি ও জামায়াত সমর্থক কর্মচারীরা বাইরের মূল দলের ইন্ধনে সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে শোডাউন করতে নানা তৎপরতা চালাচ্ছে। সরকার সমর্থক কর্মচারী সংগঠনগুলোর বিভেদকে পুঁজি করেই তারা এগুচ্ছে। সচিবালয়ে সরকারবিরোধী শোডাউন করতে পল্টন, নয়াপল্টন, সেগুনবাগিচা ও মতিঝিল এলাকার অফিস ও হোটেলে তারা দফায় দফায় বসছেন। এর অনেক খবর সরকারের বিভিন্ন সংস্থার কাছে…